Sunday 2nd October 2022

পাবলিক ভয়েস

পৃথিবীর মানুষের জন্য একটি কণ্ঠস্বর

৩৬ ঘণ্টা পর নিখোঁজ যুবকের লাশ মিললো শীতলক্ষ্যায়

এপ্রিল ৫, ২০২২ by পাবলিক ভয়েস
No Comments

গাজীপুরের শ্রীপুরে পুলিশের মারধরের হাত থেকে বাঁচতে শীতলক্ষ্যায় ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ যুবক মামুনের (২৫) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিখোঁজের ৩৫ ঘণ্টা পর মঙ্গলবার (৫ এপ্রিল) সকাল ৯টার পর স্থানীয়দের সহায়তায় পুলিশ যুবকের লাশ উদ্ধার করে। শ্রীপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহফুজ ইমতিয়াজ ভুঁইয়া লাশ উদ্ধারের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

মামুন উপজেলার বরমী ইউনিয়নের বরামা (জেলে পাড়া) গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে।

মামুনের বড় ভাই মাসুম জানান, সকালে শীতলক্ষ্যা নদীর কাপাসিয়া উপজেলা এলাকার রায়েদ খেয়াঘাটে এক যুবকের লাশ ভাসতে দেখেন স্থানীয়রা। খবর পেয়ে মাসুমসহ তার স্বজনেরা ওই খেয়াঘাটে গিয়ে ভাই মামুনের লাশ শনাক্ত করেন। পরে শ্রীপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দিন আহমেদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

মামুনের বড় ভাই অভিযোগ করেন, এএসআই শাকিল আহাম্মদ এর আগেও একাধিকবার তার ভাই মামুনকে আটক করেছে। মামলাও দিয়েছে। এতে মামুনের মনে পুলিশি ভীতি কাজ করতো। তাই, সে পুলিশকে দেখে আটকের হাত থেকে বাঁচার জন্য দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করেছিল। পরে সে নদীতে ঝাঁপ দিয়ে বাঁচার চেষ্টা করে। এসময় সে নদীর পানিতে তলিয়ে যায়।

তবে শ্রীপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহফুজ ইমতিয়াজ ভুঁইয়া বলেন, মামুন দুটি মামলায় জেল খেটে সম্প্রতি জামিনে বের হয়েছিল। সে শ্রীপুর থানার চুরি (২৬(৬)২১) মামলার পলাতক আসামি। ওই এএসআই এর আগেও মামুনকে একই মামলায় একাধিকবার গ্রেফতার করতে গিয়েছিল। রবিবার বিকালে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মামুনকে গ্রেফতারে পুনরায় অভিযান চালালে মামুন পুলিশ দেখে দৌড়ে পালিয়ে যায়।

প্রসঙ্গত, রবিবার (৩ এপ্রিল) বিকালে ইফতার কেনার জন্য দোকানে যাওয়া উদ্দেশ্য মামুন বাড়ি থেকে বের হয়। পথে শ্রীপুর থানার এএসআই শাকিল আহম্মেদের সঙ্গে তার দেখা হয়। এসময় এএসআই শাকিল আহাম্মদসহ সাদা পোশাকের ২-৩ জন পুলিশ তাদের র্সোস রৌশনকে সঙ্গে নিয়ে মামুনকে ধরার চেষ্টা করে। পরে পুলিশ মামুনকে ধাওয়া করে ধরে মারপিট শুরু করে। এক পর্যায়ে বাঁচার জন্য মামুন পাশের শীতলক্ষ্যা নদীতে ঝাঁপ দেয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.